ডিমের ৫ সুস্বাদু ও ঝটপট রেসিপি!

যখন আপনি খুব তাড়াহুড়োর মধ্যে থাকেন এবং সকালের নাশতার সময় পান না, তখন চটজলদি একটা ডিম খেয়ে নিন। এই ডিম সারা দিন আপনার শরীরের প্রয়োজনীয় পুষ্টি চাহিদা মেটাবে। সবচেয়ে সস্তা আর স্বাস্থ্যকর প্রোটিন হিসেবে ডিমের তুলনা হয় না। এতে প্রচুর পরিমাণে সেলেনিয়াম, ভিটামিন ডি, বি৬ ও বি১২ রয়েছে। আর মিনারেলস হিসেবে রয়েছে জিঙ্ক, আয়রন ও কপার।

ডিমকে আরো মুখরোচক করতে চাইলে আপনি নিজের মতো করে বিভিন্ন রেসিপি তৈরি করে নিতে পারেন। এখানে ডিম দিয়ে ঝটপট তৈরি করার পাঁচটি রেসিপি দেওয়া হলো। একনজরে দেখে নিন :

এগ সালাদ স্যান্ডউইচ
উপকরণ : পাউরুটি চার টুকরা, সেদ্ধ ডিম দুটি, মেয়োনেজ অথবা মাখন চার চা চামচ, টমেটো একটি, অল্প পেঁয়াজ রিং, ক্যাপসিকাম কুচি দুই টেবিল চামচ, লেটুস পাতা অর্ধেকটা, শুকনো মরিচ গুঁড়া সামান্য, গোলমরিচের গুঁড়া সামান্য, লবণ স্বাদমতো ও ঘি পরিমাণমতো।

প্রস্তুত প্রণালি : প্রথমে একটি বাটিতে ডিম, মেয়োনেজ, শুকনো মরিচের গুঁড়া, লবণ ও গোলমরিচের গুঁড়া ভালো করে মিশিয়ে নিন। পাউরুটির ওপর এই মিশ্রণ ভালো করে ছড়িয়ে দিন। এর ওপর টমেটো কুচি, পেঁয়াজ রিং, ক্যাপসিকাম ও লেটুস পাতা দিন। এবার অন্য একটি পাউরুটি দিয়ে ঢেকে দিন। অল্প আঁচে সামান্য ঘি দিয়ে ৩০ সেকেন্ড পাউরুটির দুই পাশ সেঁকে নিন। ব্যস, খুব সহজেই তৈরি হয়ে গেল স্বাস্থ্যকর এগ সালাদ স্যান্ডউইচ।

পটেটো অ্যান্ড এগ সালাদ
উপকরণ : সেদ্ধ আলু ৫০০ গ্রাম, সেদ্ধ ডিম দুটি, মেয়োনেজ চার টেবিল চামচ, সরিষা বাটা এক চা চামচ, পেঁয়াজ কলি কুচি দুটি, ছোট টমেটো কুচি দু/তিনটি, সবুজ ক্যাপসিকাম কুচি দুই থেকে তিন টেবিল চামচ, গোলমরিচের গুঁড়া সামান্য, ধনেপাতা কুচি দুই টেবিল চামচ ও লবণ স্বাদমতো।

প্রস্তুত প্রণালি : প্রথমে একটি বাটিতে সেদ্ধ আলু হালকা চটকে নিন। ভর্তার মতো করবেন না, যেন কিছুটা আস্ত থাকে আর কিছুটা মিশে যায়। এবার এতে ডিম, মেয়োনেজ, সরিষা বাটা, পেঁয়াজের কলি, টমেটো কুচি ও ক্যাপসিকাম কুচি দিয়ে একসঙ্গে ভালো করে মিশিয়ে নিন। এবার এর মধ্যে লবণ ও গোলমরিচের গুঁড়া দিন। সবশেষে ধনেপাতা কুচি ছড়িয়ে ৩০ মিনিট ফ্রিজে রেখে দিন। ব্যস, তৈরি হয়ে গেল পটেটো অ্যান্ড এগ সালাদ।

মাসালা স্ক্রাম্বলড এগ
উপকরণ : ফেটানো ডিম ৮ থেকে ১০টি, পেঁয়াজ কুচি একটি, কাঁচামরিচ কুচি দুটি, লাল মরিচের গুঁড়া আধা চা চামচ, আদা বাটা দুই চা চামচ, হলুদের গুঁড়া এক চা চামচ, জিরা দুই চা চামচ, তেল দুই টেবিল চামচ, ধনেপাতা কুচি দুই টেবিল চামচ ও লবণ স্বাদমতো।

প্রস্তুত প্রণালি : প্রথমে একটি ননস্টিক প্যানে তেল দিয়ে তাতে জিরা ও হলুদের গুঁড়া দিন। ৩০ থেকে ৪৫ সেকেন্ড পর এতে পেঁয়াজ কুচি দিয়ে দুই মিনিট ভেজে নিন। এবার এতে কাঁচামরিচ কুচি, লাল মরিচের গুঁড়া ও আদা বাটা দিয়ে কষিয়ে নিন। দুই থেকে তিন মিনিট কষানোর পর এর মধ্যে ডিম দিয়ে তিন থেকে চার মিনিট রান্না করুন। এবার চুলা থেকে নামিয়ে প্লেটে ঢেলে গরম গরম পরিবেশন করুন মাসালা স্ক্রাম্বলড এগ।

এগ পানিয়ারাম
উপকরণ : ডিম চারটি, মাখন আধা কাপ, হলুদের গুঁড়া সামান্য, গোলমরিচের গুঁড়া আধা চা চামচ, জিরা গুঁড়া আধা চা চামচ, তেল পরিমাণমতো ও লবণ স্বাদমতো।

প্রস্তুত প্রণালি : প্রথমে একটা প্যানে আধা কাপ পানি নিন। এবার এতে লবণ, হলুদের গুঁড়া, গোলমরিচের গুঁড়া ও জিরা গুঁড়ো দিন। এতে ডিম দিয়ে ভালো করে ফেটে নিন। এখন এতে মাখন দিয়ে ভালো করে মেশান। এবার একটি চিতই পিঠার সাজে তেল লাগিয়ে অল্প অল্প করে এই মিশ্রণ দিন। মাঝারি আঁচে ঢাকনা দিয়ে ঢেকে দিন। সেদ্ধ হয়ে গেলে চুলা থেকে নামিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন মজাদার এগ পানিয়ারাম।

এগ চপ
উপকরণ : সেদ্ধ ডিম দুটি, বেসন আধা কাপ, জিরা গুঁড়া সামান্য, মরিচের গুঁড়া আধা চা চামচ, চালের গুঁড়া চার চা চামচ, ময়দা চার চা চামচ, বেকিং সোডা সামান্য, তেল পরিমাণমতো ও লবণ স্বাদমতো।

প্রস্তুত প্রণালি : প্রথমে একটি বাটিতে বেসন, চালের গুঁড়া, ময়দা, বেকিং সোডা, মরিচের গুঁড়া, লবণ ও জিরা গুঁড়া ভালো করে মিশিয়ে নিন। এবার এতে পানি মিশিয়ে ঘন মিশ্রণ তৈরি করুন। এখন প্যানে তেল গরম করুন। ডিম চিকন করে কেটে এই মিশ্রণে চুবিয়ে ডুবো তেলে ভেজে নিন। বাদামি হয়ে গেলে তেল থেকে তুলে টিস্যু দিয়ে চেপে অতিরিক্ত তেল মুছে গরম গরম পরিবেশন করুন এগ চপ।

তথ্যসূত্র: এনটিভি বিডি ডটকম।

Check for details
SHARE