সফল বিক্রয় ও বিক্রির কৌশল!

বিক্রয় পেশা বেশ কষ্টসাধ্য হলেও এই পেশায় অনেক পুরস্কারও আছে। কষ্টসাধ্য হলেও আমি নবীনদের সব সময় উৎসাহ দিই বিক্রয় খাতে তাদের চাকরিজীবন শুরু করতে। কারণ, এই অভিজ্ঞতা পরবর্তী জীবনে হয়ে উঠবে অমূল্য। অবিশ্বাস্য হলেও সত্যি, আমার বিক্রয়কর্মের অভিজ্ঞতা আমাকে শিক্ষক এবং প্রশিক্ষক উভয় পেশাতেই বেশ সাহায্য করেছে।

কিন্তু একজন বিক্রয়কর্মীর কাজ মোটেই সহজ নয়। এতে রয়েছে অসংখ্য বাধা-বিপত্তি। তবে, হ্যাঁ, যদিও কেউ বিক্রয়কর্মী হয়ে জন্মে না, যে কেউই হয়ে উঠতে পারে একজন সফল বিক্রয়কর্মী। আমি আমার বিক্রয় পেশা শুরু করি ব্যাংকিং খাতে এবং আমি মনে করি, যদি আগ্রহ ও অধ্যবসায় থাকে, তাহলে অবশ্যই বিক্রয় কৌশল শেখা সম্ভব। আমার ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা থেকে একজন সফল বিক্রয়কর্মী হওয়ার কিছু পরামর্শ দিলাম:

বিক্রয় পুরোপুরি সংখ্যানির্ভর এবং প্রত্যাখ্যান থেকেই ভালো কিছুর শুরু হয় সব সময় মনে রাখুন, বিক্রয় পুরোপুরি সংখ্যানির্ভর। অনেকেই বলবে, এটি একটি শিল্প কিন্তু তাদের স্রেফ উপেক্ষা করুন। সফল বিক্রয় প্রক্রিয়া একটি ১০০ ভাগ বিজ্ঞান। বিক্রয়ের পেছনের বিজ্ঞানকে বুঝতে চেষ্টা করুন। যত বেশি সংখ্যক মানুষের কাছে যাবেন, ততই আপনার বিক্রয়ের পরিমাণ বাড়বে। এটাই স্বাভাবিক যে, যত সংখ্যক মানুষের কাছে আপনি যাবেন, তার মধ্যে থেকে কেবল কিছুসংখ্যক মানুষ আপনার পণ্যটি কিনবে। এই কিছু সংখ্যক লোকের কাছে বিক্রি করাই আপনার মূল উদ্দেশ্য। শতভাগ মানুষ কখনোই আপনার গ্রাহক হতে আগ্রহী হবে না। দেখা যাবে, প্রায় ৯৬ শতাংশ লোকই আপনাকে প্রত্যাখ্যান করবে। কিন্তু প্রত্যাখ্যান মানেই ব্যর্থতা নয়। অন্তত আপনি নতুন একজন মানুষের সঙ্গে পরিচিত হয়েছেন। এই সম্পর্ককে বিভিন্ন উপায়ে নিজের কাজে লাগান। ব্যাপারটি ইতিবাচক দৃষ্টিতে দেখুন।

যত বেশি সম্ভব সম্পর্ক তৈরি করুন
আগেই বলা হয়েছে, বিক্রয় সংখ্যানির্ভর। আপনার সফলভাবে বিক্রীত পণ্যের পরিমাণ নির্ভর করবে আপনার সম্পর্কগুলোর ওপর। তাই, যেভাবেই হোক যত বেশি সম্ভব সম্পর্ক তৈরি করুন। সবার কাছেই আপনার পণ্য উপস্থাপন করুন। কেউ না কেউ অবশ্যই আপনার পণ্য কিনবে। বিক্রয়কর্মীদের সবচেয়ে বড় অক্ষমতা হলো প্রচুর সংখ্যক সম্পর্ক তৈরি করতে না পারা। পারিভাষিকভাবে একে বলা হয় ‘সেলস ফানেল’ পূর্ণ না হওয়া। আমরা খুব শিগগির অন্য একটি লেখায় ‘সেলস ফানেল’ নিয়ে আলোচনা করব।

শিখুন প্রতিদিন, প্রতিটি মুহূর্তে; নিজেকে প্রতিদিন বিকশিত করতে চেষ্টা করুন
বই পড়ার কোনো বিকল্প নেই। আপনার আশপাশের মানুষদের ভালোমতো পর্যবেক্ষণ করুন এবং তাদের আচার-আচরণ বুঝতে চেষ্টা করুন। এটি হতে পারে আপনার পারিবারিক জীবনে, এমনকি চাকরিজীবনেও! বাইরে থেকে যতই আলাদা মনে হোক না কেন, ভেতরে সব মানুষেরই কিছু সাধারণ বৈশিষ্ট্য রয়েছে এবং একটু কাছ থেকে দেখলেই সেগুলো স্পষ্ট হয়ে ওঠে। শিখুন, প্রতিনিয়ত শিখুন। জ্ঞান আহরণই হোক আপনার পেশা ও নেশা। বিক্রয় কৌশলের ওপর লেখা বই ও ব্লগ পড়ুন এবং যেখান থেকেই পারুন শেখার চেষ্টা করুন। অভিজ্ঞ বিক্রয়কর্মীদের সঙ্গে চলাফেরা করুন, তাদের সঙ্গে কাজ করুন, তাদের কাজ পর্যবেক্ষণ করুন। নিজের মধ্যে শেখার মানসিকতা সৃষ্টি করুন।

প্রতিনিয়ত প্রতিকূল পরিবেশে কাজ করুন
নবীন বিক্রয়কর্মীরা প্রায়শই চেষ্টা করে তাদের পরিচিত মানুষদের কাছে বিক্রয় করতে। এটি একটি মস্ত বড় ভুল। কেননা, যাদের আপনি চেনেন না কিংবা যাদের আশপাশে আপনি স্বস্তিবোধ করেন না, কেবল তাদের কাছে গিয়েই আপনি নতুন কিছু শিখতে পারবেন। ফলস্বরূপ, খুব দ্রুত এবং খুব সহজেই আপনার জড়তা কেটে যাবে এবং আপনার বিক্রয়ের ব্যাপ্তি বৃদ্ধি পাবে। যতই ইতস্তত বোধ করুন না কেন, প্রতিদিন নতুন কারও সঙ্গে পরিচিত হতে চেষ্টা করুন। এটিকে আপনার দৈনন্দিন জীবনের একটি অংশ বানিয়ে ফেলুন। আপনি শিগগিরই বিক্রয় খাতে সাফল্য ও খ্যাতি লাভ করবেন।

পণ্য বা সেবা বিক্রি করতে চেষ্টা করবেন না; সমাধান বিক্রি করুন
বিক্রয়কর্মীরা অনেক সময় ব্যর্থ হয়, কারণ তারা গ্রাহকের কাছে জোর করে বিক্রয় করার চেষ্টা করে। এই পদ্ধতি কখনোই কাজে দেবে না। প্রথমত চেষ্টা করুন গ্রাহকের সমস্যাগুলো বুঝতে তারপর আপনার পণ্য বা সেবার মাধ্যমে গ্রাহকের সেই সমস্যা সমাধান করার চেষ্টা করুন। এতে করে, গ্রাহক আপনাকে স্বার্থপর এবং অর্থলোভী ভাববে না বরং আপনাকে একজন বন্ধু হিসেবে দেখবে।

আপনার শ্রবণ দক্ষতাকে বৃদ্ধি করুন
বিক্রয় পেশায় শ্রবণ দক্ষতাই আপনার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দক্ষতা। কোনো কিছু শোনা আর মন দিয়ে শোনার মধ্যে আকাশ-পাতাল পার্থক্য। কোনো ক্রমেই দুটিকে এক ভাবা চলবে না। শুনতে হবে আপনার কান, মস্তিষ্ক ও হৃদয় দিয়ে। গ্রাহককে ভালোভাবে লক্ষ করুন। গ্রাহককে অনুভব করুন। গ্রাহকের চাহিদা ও সমস্যাগুলো বুঝতে চেষ্টা করুন। মনোযোগ দিয়ে গ্রাহকের কথা শুনুন। কেননা, কিছুক্ষণ তার কথা শুনলেই আপনি তাকে বুঝতে পারবেন। তারপর তার কাছে আপনার সমাধান উপস্থাপন করুন।

বিক্রয় সম্পন্ন করুন
অনেক বিক্রয়কর্মীই গ্রাহককে পণ্যটি ক্রয় করার জন্য তাগিদ দেয় না। তারা ধারণা করে যে, সাক্ষাৎকার শেষে গ্রাহকেরাই ক্রয় করার জন্য উদ্যোগী হবে। কিন্তু বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই তা হয় না। যখন আপনি নিশ্চিত যে গ্রাহক আপনার পণ্যের ব্যাপারে আগ্রহী, তাকে জিজ্ঞেস করুন। বিক্রয়টি সফলভাবে সম্পন্ন করুন। বিক্রয় সম্পন্ন করা নিয়ে আমরা পরবর্তী একটি লেখায় আরও বিস্তারিত আলোচনা করব।

সাইফ নোমান খান, সহকারী অধ্যাপক, আইবিএ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়
তথ্যসূত্র: প্রথম আলো ডটকম।

Check for details
SHARE